ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের সুন্দরী ছাত্রী

ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি ২০১৬’ প্রতিযোগিতায় এ বছর বাংলাদেশের প্রতিনিধি হয়ে যাচ্ছেন ‘আহসানউল্লাহ ইউনিভার্সিটি অফ সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি’র শিক্ষার্থী মুঞ্জারিন মাহবুব অবনী। আসছে ১২ জানুয়ারি থেকে চীনের বেইজিং-এ অনুষ্ঠিতব্য সারাবিশ্বের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের সুন্দরীদের নিয়ে ‘ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি’ প্রতিযোগিতায় একমাত্র বাংলাদেশি প্রতিনিধি হিসেবে অংশ নিবেন তিনি। জানা যায়, এই উদ্দেশে আজ রাতের ফ্লাইটেই চীন যাচ্ছেন এ সুন্দরী।

মাত্র দুই বছর আগে ২০১৪ সালে র‌্যাম্প মডেল হিসেবে যাত্রা শুরু করেন অবনী। আর এরপর থেকেই মডেলিং আর বেশকিছু নামিদামি বিজ্ঞাপনচিত্রে কাজ করে পরিচিতি আর প্রশংসা দুই-ই কুড়িয়েছেন তিনি। এবার দেশের গন্ডি পেরিয়ে দেশের একমাত্র প্রতিনিধি হিসেবে অবনী অংশ নিতে যাচ্ছেন ‘ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি ২০১৬’-এর প্রতিযোগিতায়। যেখানে তিনি লড়বেন বিশ্বের মোট ৭০টি দেশের নির্বাচিত সুন্দরী প্রতিযোগির সঙ্গে।

দেশের প্রখ্যাত টেলিকম সার্ভিস গ্রামীণফোনের বদৌলতে ইতিমধ্যেই দেশে পরিচিত মুখ অবনী! গ্রামীনফোনের ১ পয়সা প্রতিসেকেন্ডের বিজ্ঞাপনের কল্যাণে অবনী খ্যাতি আজ দেশব্যাপী। আর দেশের এই পরিচিত মুখটি এবার যাচ্ছেন বিশাল পরিসরে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে নিজেকে ঝালাই করার যুদ্ধে!

বাংলাদেশ ছাড়ার আগে প্রতিক্রিয়ায় অবনী সবার কাছে দোয়া চেয়ে বাংলামেইলকে বলেন, এর আগেও একাধিকবার বাংলাদেশের হয়ে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ নিয়েছি, কিন্তু এতো বিশাল পরিসরে আন্তর্জাতিক পরিমন্ডলে এবারই প্রথমবার। আশা করি সবার দোয়া আমার উপর থাকলে ‘ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি’র মুকুট ছিনিয়েও আনতে পারবো।

বিজ্ঞাপনের মডেল হিসেবে এরইমধ্যে বেশ খ্যাতি অর্জন করা অবনীকে অভিনয়ের ইচ্ছে আছে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, বেসিক্যালি আমিতো র‌্যাম্প মডেলিং করি। এটা নিয়ে আপাতত সব ব্যস্ততা। আর অভিনয়ের প্রতি একটু দুর্বলতাতো আসলে সবারই থাকে, তবে আমি এখনই শুরু করতে চাই না। একটু সময় নিয়ে দেখে বুঝে অভিনয় করতে চাই। তবে নাচকে মন থেকে খুব ভালোবাসেন বলেও জানালেন অবনী।

১৯৮৬ সাল থেকে শুরু হওয়া ‘ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি’র প্রতিযোগিতায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশীবার মুকুট গেছে ফিলিপাইনে। এমনকি ‘মিস ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি’র সর্বশেষ বিজয়ী প্রতিযোগিও ফিলিপাইনের বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া সুন্দরী মিচেল লুকাস। এ পর্যন্ত ফিলিপাইনের সুন্দরীরা এই মুকুটটি ৬ বার অর্জন করেছেন। এছাড়াও দক্ষিণ কোরিয়া ও আমেরিকার বিশ্ববিদ্যালয়ের সুন্দরীরা সেরার মুকুটটি তিন বার করে ছিনিয়ে নিয়েছেন। ১২ জানুয়ারি থেকে শুরু হতে যাওয়া ‘ওয়ার্ল্ড মিস ইউনিভার্সিটি ২০১৬’ প্রতিযোগিতার গ্রেন্ড ফিনালে অনুষ্ঠিত হবে ২৭ জানুয়ারি।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Open